Suzuki Bangladesh
KB RiDeRz বিজয় দিবস মোটরবাইক র‍্যালি ২০১৯

বিজয় দিবস উপলক্ষে KB RiDeRz এর মোটরসাইকেল র‍্যালি ২০১৯

Tourino Tyres

KB Riderz, বাংলাদেশের অন্যতম পরিচিত মোটরসাইকেল স্ট্যান্ট এবং রাইডিং গ্রুপ। প্রায় ১১ বছর আগে এই গ্রুপটি তাদের যাত্রা শুরু করে। প্রায় প্রতি বছরই তারা ১৬ ডিসেম্বরে তারা বিজয় দিবস মোটরবাইক র‍্যালি করে থাকে। এই বছরও এর ব্যতিক্রম হয়নি। আগামী ১৬ ডিসেম্বর ২০১৯ তারিখে তারা আয়োজন করতে যাচ্ছে বিজয় দিবস মোটরবাইক র‍্যালি ২০১৯। উক্ত অনুষ্ঠানটির স্পনসর হিসেবে থাকছে টোরিন টায়ারস এবং অনলাইন পার্টনার হিসেবে র‍য়েছে Deshibiker.com.

মূলত ট্রাফিক আইন সম্পর্কে সচেতনতা বৃদ্ধি এবং সবার মাঝে ট্রাফিক আইনের গুরুত্ব তুলে ধরার জন্যই এবারের র‍্যালিটি আয়োজন করছে তারা। দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে অনেক বাইকার অংশগ্রহন করবেন এই র‍্যালিটিতে। এবারের স্লোগান হল,  “ট্রাফিক আইন মেনে চলি,
দেশ গঠনে সহায়তা করি”

মিলিত হওয়ার স্থানঃ 

স্থান: মানিক মিয়া এভিনিউ (রাজধানী স্কুলের অপসিড থেকে)

সময়: সকাল ১০:০০ টা। (মিলিত হওয়া এবং টি-শার্ট বিতরণ শুরু)
টি-শার্ট বিতরণ শেষ হবে: সকাল ১১:৩০ নাগাদ।
র‍্যালি শুরু হবে দুপুর: ১২:০০ টা

কার্য বিবরণী:

  • রাজধানী স্কুল হতে র‍্যালি শুরু।
  • ভ্যেনুতে এসে ভলেন্টিয়ারদের সাহায্য নিয়ে বাইক সিরিয়ালি রেখে টি-শার্ট গ্রহণ করতে হবে।
  • র‍্যালি হবে দুই সারিতে।
  • যে কোন বাইক নিয়ে অংশগ্রহণ করতে পারবেন।
  • হেলমেট বাধ্যতামূলক পিলিয়ণ সহ।
    রাইডার ও পিলিয়ন উভয়রই এর হেলমেট অবশ্যই থাকতে হবে। হেলমেট ছাড়া কেউ অংশগ্রহণ করতে পারবে না।
  • র‍্যালি শেষ হবে ৩০০ ফিট বালুর ব্রিজ এর পর ।
  • র‍্যালি শেষ এ সকল বাইকার এর মিলনায়তন ও প্রীতিসূলভ আড্ডার ছোট্ট ব্যবস্থা।

যে সকল বিষয়গুলো থেকে বিরত থাকবেনঃ 

  • অংশগ্রহণকারী সকল ভাইয়েরা নিজেদের বাইকের সকল কাগজপত্র এবং নিজের ভ্যালিড ড্রাইভিং লাইসেন্স সাথে নিয়ে আসবেন।লাইসেন্স ছাড়া অংশগ্রহণ করতে পারবেন না।
  • স্যান্ডেল পড়ে অংশগ্রহণ করা যাবেনা।
  • ত্রুটিপূর্ণ বাইক নিয়ে আসা যাবে না।
  • ২ সিরিয়ালের লাইন ভঙ্গ করলে আপনাকে র‍্যালি থেকে তৎক্ষণাৎ বের করে দেয়া হবে।
  • ওভারটেকিং বা কোনো ধরনের রেসিং মনোভাব সম্পূর্ণরূপে নিষিদ্ধ।
    রেসিং মনোভাব নিয়ে রেলিতে আসবেন না।
  • ভলেন্টিয়ারদের সকল নির্দেশনা মেনে চলতে হবে।
  • হেলমেট ব্যতীত বা র‍্যালির সময় কেউ যদি হেলমেট খুলে ফেলেন তাকে র‍্যালি তে অংশগ্রহণ করতে দেয়া হবে না।
  • ব্যক্তিগত ক্ল্যাশ পরিহার করে সকল কে র‍্যালি তে অংশগ্রহণ করুন।
  • রেলিতে এসে নিয়ম বহির্ভুত কোন কাজ করা যাবে না।
  • রেলিতে এমন কিছু করবেন না যা দিয়ে রেলি চলাকালীন বা আগে/পরে বিশ্রীঙ্খলা পরিস্থিতি সৃষ্টি না হয়।
  • দেশের আইন মেনে ও নিজের ব্যক্তি মর্যাদা অক্ষুন্ন রেখে র‍্যালি সম্পাদন করতে হবে।

তাই যারা বিজয় দিবস র‍্যালিতে অংশগ্রহন করতে চান তারা ১৬ ডিসেম্বর ২০১৯ তারিখে চলে আসতে পারেন মানিক মিয়া এভিনিউ এ।

মন্তব্য
Shell Advance

About The Author

Related Posts

error: Content is protected !!
×