Suzuki Bangladesh
ইদানিং বাইকের ইঞ্জিন ওভার হীট হচ্ছে? কি কারণে হতে পারে? (বিস্তারিত) - দেশি বাইকার

ইদানিং বাইকের ইঞ্জিন ওভার হীট হচ্ছে? কি কারণে হতে পারে? (বিস্তারিত)

Tourino Tyres
তীব্র গরম পড়ছে। গত দেড় দুই মাস টানা ৩৭+ ডিগ্রি গরম পড়ছে সারাদিন,সাথে উচ্চ আদ্র আবহাওয়া। বাতাস প্রবাহ নাই। এমনকি বেশিরভাগ দিনেই ৩৮-৪১ ডিগ্রি তাপমাত্রা উঠেছে। রাতেও ৩০ ডিগ্রি করে গরম থাকছে।
সো, এখন বাইকার ভাইরা একটা কমন সমস্যা ফেইস করছেন তা হলো ইঞ্জিন ওভার হিট! সবাই আতংকে আছেন যে তার বাইকের কোন সমস্যা হয়েছে কিনা, এত ওভার হিট তো কখনো করে নাই আগে কখনো। পা ঝলসে যাওয়ার মত অবস্থা ইঞ্জিনের গরম বাতাসে!সাথে তীব্র চের চের টাইপের শব্দ ইঞ্জিন থেকে! আবার ইঞ্জিন অয়েল কমে যাচ্ছে! অনেকে ভাবছেন যে তাদের বাইকের পিস্টন নস্ট হয়ে গিয়েছে, অয়েল ড্রেন দিয়ে ১০০-২০০মি.লি. গায়েব হয়ে যাচ্ছে হঠাৎ করে।আজ আলোচনা করবোঃ

☼ কেন হঠাৎ করে এটা সবারই হচ্ছে এখন?
☼ কেন একইসাথে ইঞ্জিন অয়েল কমে যাওয়া, ইঞ্জিনের সাউন্ড হেজি হয়ে যাওয়া সমস্যা গুলা আসছে ভাল ইঞ্জিনে?
☼ এর ভিতরের কারন কি?
☼ ওভারহিট, সাউন্ড খারাপ বা ভাল ইঞ্জিনে অয়েল কমে যাওয়া সমস্যা হলে করনীয় কি?

আসলে গত ৪-৫ বছর এত দীর্ঘ টাইম ধরে টানা ৩৭+ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা ছিলো নাহ। বিগত বছর গুলাতে ৩৭+ডিগ্রি থাকলেও ৪-৭ দিন স্থায়ী থাকতো,এরপর নেমে আসতো। বাট এই বছর টানা দেড় দুই মাস ব্যাপি পড়ছে এই অসহনীয় গরম। যার জন্য আসলেই পরোক্ষ ভাবে আমরাই দায়ী। আমাদের উচিত বেশি বেশি ইস্তিগফার পড়া যাতে আল্লাহ আমাদের উপর নারাজ হয়ে এই আজাব না দেন আর বেশি বেশি গাছ রোপণ করা।

এইবার আসি কেন এই ওভার হিট? 🔥🔥🔥

এর কিছু কারন আছেঃ

🔥 পরিবেশের তাপমাত্রা ৩৭+ ডিগ্রি সেলসিয়াস হওয়ার কারনে ইঞ্জিনের operating temperature(ইঞ্জিন ফুল গরম হলে যেই তাপমাত্রা হয়) বেড়ে যায়। (১১৫+ ডিগ্রি হয়ে যাচ্ছে অনেক সময় যেখানে অলয়েজ ১০৫ডিগ্রি বা এর নিচে থাকা উচিত)।

🔥ইঞ্জিনের অয়েল গ্রেড ম্যানুফেকচারার সেট করে নরমাল ওয়েদার তাপমাত্রাকে বিবেচনা করে। এই নরমাল তাপমাত্রা ধরা হয় জেনারেলি বিলো ৩৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসকে। সর্বোচ্চ এই তাপমাত্রাকে প্রমাণ ধরলে কমিউটিংবাইকের ইঞ্জিনের operating temperature 90-105 degree বা এভারেজলি 100ডিগ্রি দাঁড়ায়। ১০০ ডিগ্রি সেলসিয়াসকে প্রমান ধরে ইঞ্জিন অয়েলের অপারেটিং গ্রেড দেয়া হয়। যেমন হোন্ডা বাইকে ৩০ গ্রেড (10w-30), ইয়ামাহা সুজুকি বাইকে 40 গ্রেড (10w-40), বাজাজ পালসার সিরিজ বাইকে ৫০ গ্রেড (20w-50) ধরা হয়।
কিন্তু পরিবেশের তাপমাত্রা যখন ৪০ ডিগ্রি ছুই ছুই বা একে ছাড়িয়ে যায় তখন ইঞ্জিনের এভারেজ operating temperature বেড়ে যায়(১১৫ ডিগ্রি বা এর বেশি)। তখন উক্ত তাপমাত্রায় ম্যানুয়াল বুকে দেয়া ইঞ্জিন অয়েল গ্রেড সঠিক প্রটেকশন দিতে পারে নাহ কারন অয়েল পাতলা হয়ে যায়, ভিস্কোসিটি ডাউন খায় (জাস্ট বুঝার সুবিধার্থে বললে এমন দাঁড়ায় যে উক্ত উচ্চ অপারেটিং তাপমাত্রায় ৪০ গ্রেডের অয়েল প্রায় ৩০ গ্রেডের অয়েলের মত পাতলা হয়ে যায়, ৫০ গ্রেড হয়ে যায় ৪০ গ্রেডের কাছাকাছি পাতলা, ৩০ গ্রেড হয়ে যায় পানির মত পাতলা ২০ গ্রেডের কাছাকাছি)।

তাই ফ্রিকসান বেড়ে যায় আর পাতলা অয়েলের হিট শোষন ক্ষমতা কম হওয়ার দরুন আর পাতলা অয়েলের প্রটেকশন ফিল্ম পাতলা হওয়ার কারনে ফ্রিকশান বেড়ে যায়, তখন অলওভার ইঞ্জিনের হিট বেড়ে যায়,। এছাড়া পাতলা অয়েলের কারনে ইঞ্জিনের চের চের সাউন্ড বেড়ে যায়।
রিকমেন্ডেড গ্রেড থেকে পাতলা হয়ে যাওয়ার কারনে অয়েল পিস্টন রিং দিয়ে লিক করে কমবাশন চ্যাম্বারে চলে আসে। তাই অয়েল কমে যায়। বাট এতই সামান্য রেইটে আসে যে কোন নীল ধুয়া দেখা যায় নাহ।

এইজন্যে ইয়ামাহা, সুজুকি, হোন্ডা বা ইন্টারন্যাশনাল কোম্পানি গুলো তাদের ওয়েল গ্রেডের একটা চার্ট দিয়ে দেয় ম্যানুয়াল বুকে,খেয়াল করে দেখবেন সেখানে বলে দেয় যে ৪০ ডিগ্রি ক্রস করলে সেখানে ডেন্সার গ্রেড মানে বেশি সাজেস্ট করসে(পোস্টে ৩টা চার্ট দিয়ে দিসি)। হোন্ডা ৩০(10w-30) গ্রেডের যায়গায় ৪০(10w-40, 20w-40), ইয়ামাহা ৪০(10w-40) গ্রেডের যায়গায় 50 (20w-50, 10w-50) সাজেস্ট করছে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের উপরের তাপমাত্রায়।
(দিলামতো চিন্তায় ফালায়া 😛)

🔥গরমে বাতাসও গরম থাকে, পরিবেশে কোন বাতাস প্রবাহ থাকে নাহ। সো এয়ার কুল ইঞ্জিনে গরম এয়ার ফ্লো ভাল ভাবে কুল করতে পারে নাহ ইঞ্জিনকে। সো, অপারেটিং তাপমাত্রা বেড়ে যায়।

🔥মটুল ৭১০০, ৩০০ভি, মবিল-১, এই তিনটা অয়েলের কাইনেমেটিক প্রপার্টি এমন যে পার্ফরমেন্স অনেক ভাল দিবে কিন্তু হিট একটু বেশি হবে। সো, এই তীব্র গরমে উক্ত তিনটা অয়েল একটু বেশি হিট করবে। (বাট এটা নিয়া চিন্তার কিছু নাই, নিশ্চিন্তে ইউজ করুন)।
আবার yamalub optima, Honda 4t, Hero 4T উক্ত অয়েল গুলার কাইনেমেটিক প্রপার্টি এমন যে ইঞ্জিন হিট করবে, বাট খুব ভাল মানের মিনারেল না হওয়ার কারনে অন্য দিকে এক্সট্রা কোন বেনিফিট দেয় নাহ। সো, এই তিনটা অয়েল এভয়েড করাই বেটার এই তীব্র গরমে।

💦💦কি করবেন এই গরম আবহাওয়া জনিত ইঞ্জিন ওভার হিট হলে বা চের চের সাউন্ড বা অয়েল কমে গেলে?

একচুয়ালি চাইলে ইগনোর করতে পারেন এই ওভার হিট,ভয়ের কিছু নাই। আবহাওয়া ঠান্ডা হলে অটো হিট কমে যাবে।
তবে নিম্ন কাজ গুলো করলে হিট কম হবেঃ

যদিও উচিত ৪০ ডিগ্রি ক্রস করলে গ্রেড এক স্টেপ ডেন্সার করা, বাট আল হামদু লিল্লাহ প্রচন্ড গরম পড়লেও ৪০+ ডিগ্রি অলমোস্ট টাইমে থাকে নাহ। থাকলেও অল্প টাইম থাকে।
তাই গ্রেড চেঞ্জের দরকার নাই।

যেটা করবেন তা হলো অয়েলের ড্রেন পিরিওড কমিয়ে ফেলা। অর্থ্যাৎ কুইক ড্রেন দিয়ে ফেলা। যেই অয়েল দিয়ে ১০০০কি.মি. চালানো যায়,সেটা ৭০০কি.মি. চালিয়ে ফেলে দিবেন, যেই অয়েল ২৪০০কি.মি. চালানো যায় সেটা ১৮০০-২০০০কি.মি. চালিয়ে ড্রেন দিয়ে ফেলবেন।

এয়ার ফিল্টার অবশ্যই ক্লিন রাখা এবং স্পার্ক প্লাগ ক্লিন রাখা। এয়ার ফিল্টার যতটা ফ্রি ফ্লো থাকবে, ইঞ্জিন হিট কম থাকার টেনডেন্সি থাকবে।

ক্লাচ লিভার টেনসান সঠিক রাখবেন। অতিরিক্ত টাইট ক্লাচ লিভার ইঞ্জিন বেশি হিট করবে। আবার বেশি লুজ ক্লাচ লিভারও হিট করে ইঞ্জিন।।

চাকার টায়ার প্রেসার সঠিক রাখবেন

মোস্ট ইম্পরট্যান্ট, সকল প্রকার এক্সট্রা ইঞ্জিন মাড গার্ড খুলে রাখবেন!! কখনো লাগাবেন নাহ এইসব!! এইগুলা ইঞ্জিনে বাতাস ফ্লো বাধা দেয়, ইঞ্জিন হিট করে।

আইডল আরপিএম এক্সাক্টলি ম্যানুয়ালে যা বলা আছে তাই রাখতে হবে। কমও রাখা যাবে নাহ,বেশিও নাহ। (এফ আই বাইকের জন্য এইটা গুরুত্তপূর্ন)

এফ আই বাইকে ইঞ্জেক্টর ক্লিন করবেন।

ইঞ্জিনে বেশি ঝের ঝের সাউন্ড হলে সঠিক গ্যাপ রেখে ফিলার গজ দিয়ে ট্যাপেট এডজাস্ট করবেন। এই গরমে সামান্য ট্যাপেট লুজ থাকলেও বিকট চের চের সাউন্ড হবে,যেটা অন্য সময় হবে নাহ!।

লিকুইড কুল ইঞ্জিনে ভাল মানের কুলেন্ট ইন্সটল করবেন ইঞ্জিন ওভার হিট হলে। রেপজল কুলেন্ট অনেক ভাল পার্ফরমেন্স দিচ্ছে এই গরমে।এছাড়া ক্যাস্ট্রল রেডিকুল, মটুল ইনুজেল ভাল অপশান।

ইঞ্জিনে কাদা থাকলে ক্লিন করুন। অতিরিক্ত ধুলা বালি বা কাদাযুক্ত ইঞ্জিন প্রপারলি কুল হতে পারে না। তাই হিট করে ইঞ্জিন।

আজ এই পর্যন্তই।
আল্লাহর কাছে দোয়া করুন সবাই যাতে এই তীব্র দাবদাহের মত আজাব আমাদের না দেন। 😔 রহমতের বৃষ্টি দিয়ে যেন আমাদের শীতল করেন।

 

লিখেছেনঃ সাহেদ আহসান আবীর (এডমিন – Fuel Injection Club BD)

মন্তব্য
Shell Advance

About The Author

Related Posts

error: Content is protected !!
×